শতাব্দীর সেরা বল-আজ সেই শতাব্দী-সেরা বলের জন্ম

0
12
শতাব্দীর সেরা বল

শতাব্দীর সেরা বল বলে কথা। একটি বল কি একটি ম্যাচের গতিপথ পাল্টে দিতে পারে? কিংবা কোনো সিরিজের? পারে, যদি সেই বলটি হয় শতাব্দী-সেরা। আর বলটির নির্মাতা হন শেন ওয়ার্ন নামে এক ‘জাদুকর’। ১৯৯৩ সালের ৪ জুন তাঁর হাত থেকে বেরিয়ে এসেছিল এমন এক অবিশ্বাস্য বল যা কাঁপিয়ে দিয়েছিল ক্রিকেটবিশ্বকে। আজও যেন সেই বলে মোহাচ্ছন্ন ক্রিকেটপ্রেমীরা।

সেদিন অ্যাশেজের প্রথম টেস্টে মুখোমুখি হয়েছিল ক্রিকেটের দুই ‘চিরশত্রু’ অস্ট্রেলিয়া ও ইংল্যান্ড। ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ২৮৯ রানে অলআউট হয়ে যায় অস্ট্রেলিয়া। জবাবে এক উইকেটে ৮০ রান নিয়ে ভালোভাবেই এগিয়ে যাচ্ছিল স্বাগতিক দল। ক্রিজে দুই অভিজ্ঞ ব্যাটসম্যান গ্রাহাম গুচ ও মাইক গ্যাটিংয়ের উপস্থিতিতে স্বস্তিতেই ছিল ইংল্যান্ড। কিন্তু মাত্র একটা বলে যে সব কিছু ওলটপালট হয়ে যাবে, তা কে জানত!

সেটা ছিল অ্যাশেজে ওয়ার্নের প্রথম বল। আর প্রথম বলেই বাজিমাত। লেগস্টাম্পের অনেক বাইরে পিচ পড়েছিল বলটা। গ্যাটিং কিছু বুঝতেই পারেননি। বল ব্যাটকে ফাঁকি দিয়ে, গ্যাটিংসহ পুরো মাঠকে হতভম্ব করে আঘাত করেছিল অফস্টাম্পের বেলে। সেই ধাক্কা আর সামলে উঠতে পারেনি ইংল্যান্ড। ম্যাচটা ১৭৯ রানে জিতে পরে সিরিজও ৪-১ ব্যবধানে জিতে নিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া।

সেই থেকে সেটা শতাব্দী-সেরা বল নামে পরিচিত। ‘ক্রিকেটের বাইবেল’ খ্যাত উইজডেন যার সম্পর্কে লিখেছে, ‘কখনোই মাত্র একটা ডেলিভারি একটা ম্যাচ বা একটা সিরিজের ওপরে এতখানি প্রভাব বিস্তার করেনি।’

 

 

Please follow and like us:
20

Comments

comments